মেনু নির্বাচন করুন
পাতা

সিটিজেন চার্টার


গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার
বাংলাদেশ রোড ট্রান্সপোর্ট অথরিটি(বিআরটিএ)
নওগাঁ সার্কেল, নওগাঁ।
www.brta.gov.bd
সিটিজেন চার্টার
১. মোটরযান রেজিস্ট্রেশন সেবা প্রদান পদ্ধতি :
(ক) মোটরযান রেজিস্ট্রেশনের জন্য সেবা গ্রহণকারীকে নির্ধারিত ফরমে প্রয়োজনীয় কাগজপত্রসহ সংশ্লিষ্ট বিআরটিএ অফিসে আবেদন করতে হয়। আবেদনটি যাচাই-বাচাই করে সঠিক পাওয়া গেলে গ্রাহককে প্রয়োজনীয় রেজিস্ট্রেশন ফি ব্যাংকে জমা প্রদানে নিমিত্ত একটি এ্যাসেসমেন্ট স্লিপ প্রদান করা হয়। জমা কৃত ফিসহ মোটরযান পরিদর্শক কর্তৃক মোটরযানটি পরিদর্শনের জন্য বিআরটিএ হাজির করতে হয়। পরিদর্শনের পর গাড়িটি সঠিক পাওয়া গেলে সহকারী পরিচালক(ইঞ্জিঃ)  রেজিস্টাটিং অথরিটি) কর্তৃক রেজিস্ট্রেশনের অনুমোদন করা হয় এবং সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের স্বাক্ষর সীলসহ গ্রাহককে রেজিস্ট্রেশন নম্বর উল্লেখপূর্বক প্রাপ্তি স্বীকারপত্র সরবরাহ করা হয়। এছাড়া প্রাপ্তি স্বীকারপত্র ৯০ দিনের মধ্যে নাম্বার প্লেট সংগ্রহ ও ডিজিটাল রেজিস্ট্রেশন সার্টিফিকেট (ডিআরসি) তৈরীর বায়োমেট্রিক্স প্রদানে গ্রাহককে অনুরোধ করা হয়।
**প্রয়োজনীয় কাগজপত্র :
১। মালিক ও আমদানিকারক/ডিলার কর্তৃক যথাযথভাবে পূরণ ও স্বাক্ষর করা নির্ধারিত আবেদনপত্রঃ ক. একাধিক ব্যাক্তি যৌথভাবে কোন গাড়ির মালিক হলে সে ক্ষেত্রে একজনের নামে রেজিস্ট্রেশনের জন্য সকলের সম্মতি সম্বলিত হলফনামাঃ খ. প্রতিষ্ঠান/কোম্পানি মালিকানার ক্ষেত্রে অথরাইজড কর্মকর্তার স্বাক্ষর ও সীল মোহর। গ. ব্যাংক অথবা অর্থলগ্নি প্রতিষ্ঠানের সাথে গাড়ির মালিকানার আর্থিক সংশ্লিষ্টতা থাকলে সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানের প্যাডে রেজিস্ট্রেশন কর্তৃপক্ষ বরাবর আবেদন।
২। বিল অব এন্ট্রি, ইনভয়েস, বিল অব লিডিং ও এলসি এ কপি।
৩। সেল সার্টিফিকেট/সেল ইন্টিমেশন/বিক্রয় প্রমানপত্র (আমদানিকারক/বিক্রেতা প্রদত্ত)।
৪। প্যাকিং লিস্ট, ডেলিভারী চালান ও গেটপাশ (সিকেডি গাড়ির ক্ষেত্রে)।
৫। টিআইএন সার্টিফিকেট এবং অগ্রিম/অনুমোতি আয়কর প্রদানের প্রমাণপত্র।
৬। বিদেশী নাগরিকের নামে রেজিস্ট্রেশন/মালিকানা বদলী হলে বাংলাদেশ ওয়ার্ক পারমিট এবং ভিসার মেয়াদের কপি।
৭। ক. মূসক ১ প্রযোজ্য ক্ষেত্রে, খ. মূসক ১১ (ক)/ভ্যাট (প্রযোজ্য ক্ষেত্রে)।
৮। প্রস্তুতকারক বিআরটিএ কর্তৃক অনুমোদিত বডি আসন ব্যবস্থার স্পেসিফিকেশন সম্বলিত ড্রাইভিং (বাস, ট্রাক, হিউম্যান হলার, ডেলিভারী ভ্যান, অটো টেম্পু ইত্যাদি মোটরযানের ক্ষেত্রে)।
৯। সিকেডি মোটরযানের ক্ষেত্রে বিআরটিএ টাইপ অনুমোদন ও অনুমোদিত সংযোজনী তালিকা।
১০। বডি ভ্যাট চালান ও ভ্যাট পরিশোধের রসিদ প্রযোজ্য ক্ষেত্রে।
১১। প্রযোজ্য রেজিস্ট্রেশন ফি জমা দানের রশিদ।
১২। কাস্টমস্ কর্তৃপক্ষ ও জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের ছাড়পত্র প্রযোজ্য ক্ষেত্রে।
১৩। ব্যক্তি মালিকানাধীন আবেদনকারী ক্ষেত্রে জাতীয় পরিচয়পত্র/পাসপোর্ট/টেলিফোন বিল/বিদ্যুৎ বিল ইত্যাদির যে কোনটি সত্যায়িত ফটোকপি এবং মালিক প্রতিষ্ঠান হলে প্রতিষ্ঠানের প্যাডে চিঠি।
১৪। নিলামে ক্রয়কৃত প্রতিরক্ষা বিভাগের গাড়ির ক্ষেত্রে লগবুকে বর্ণিত প্রস্তুতকাল ও প্রস্তুতকারকের বিস্তারিত বিবরণ সম্বলিত ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা প্রদত্ত ছাড়পত্র।
১৫। নিলামে ক্রয়কৃত সরকারী/আদা সরকারী/স্বায়ত্বশাসিত প্রতিষ্ঠানের গাড়ির ক্ষেত্রে নিলাম সংক্রান্ত কাগজপত্র এবং মেরামতের বিস্তারিত বিবরণ।
১৬। রিকন্ডিশন্ড মোটরযান রেজিস্ট্রেশনের ক্ষেত্রে নিক্ত অতিরিক্ত কাগজপত্র প্রয়োজন হবে-ক.‘টিও’ ফরম (ক্রেতা কর্তৃক স্বাক্ষরিত) ‘টিটিও’ ফরম ও বিক্রয় রশিদ (আমদানিকারক কর্তৃক স্বাক্ষরিত) খ. ডি-রেজিস্ট্রেশন সার্টিফিকেটের মূল কপি এবং ডি-রেজিস্ট্রেশনের ইংরেজি অনুবাদের সত্যায়িত কপি সার্টিফিকেট অব ক্যানসেলেশন এর সত্যায়িত কপি। গ. এক গাড়িতে একাধিক গাড়ির বর্ণনা থাকলে মূলকপি প্রদর্শন পূর্বক সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ/বিভাগ কর্তৃক সত্যায়িত কপি দাখিল করা যাবে।
১৭। মোটরযান পরিদর্শক কর্তৃক গাড়িটি পরিদর্শন প্রতিবেদন।

**সেবার মূল্য ও পরিশোধ পদ্ধতিঃ
মোটরযানের রেজিস্ট্রেশন ফি গাড়ির সিসি, সিট সংখ্যা, বোঝায় গাড়ির ওজন ইত্যাদির উপর ভিত্তি করে নির্ধারণ করা রয়েছে, যার তালিকা বিআরটিএ ওয়েব সাইটে www.brta.gov.bd রয়েছে। ১. গাড়ি ভেদে ৪,২০০/- টাকা থেকে ৯৮,০০০/- টাকা। ২. ফিটনেস ফি হালকা গাড়ি ৯০০/- টাকা। ৩. ফিটনেস ফি ভারী গাড়ি ১,৩৫০/- টাকা। ৪. প্রতিটি গাড়ির পরিদর্শন ফি ৪৫০/- টাকা এবং লেবেল বা স্টিকার ফি ৪৫/- টাকা। এ সকল ফি সহ মোটরযান সংক্রান্ত যে কোন কর/ফি অন-লাইন ব্যাংকিং ব্যবস্থায় অনুমোদিত ব্যাংকের নির্ধারিত শাখা/বুথ ও পরিশোধ করা যায়। এ ছাড়া ডেবিট/ক্রেডিট কার্ডের মাধ্যমে  পরিশোধ করা যায়।
২. রেট্রো-রিফ্লেকক্টিভ নাম্বারপ্লেট, আরএফআইডি ট্যাগ ডিজিটাল রেজিস্ট্রেশন সার্টিফিকেট (ডিআরসি) সেবা প্রদান পদ্ধতিঃ
ক. রেজিস্ট্রেশন সম্পন্নের ৩০ দিনের মধ্যে নাম্বার প্লেট তৈরী করা হয় এবং নাম্বারপ্লেট সংযোজন ও বায়োমেট্রিক্স প্রদানের জন্য এসএমএস প্রদান করা হয়। ঢাকা ও চট্রগ্রাম সার্কেল অফিস সমূহে নাম্বার প্লেট সংযোজন ও ডিআরসি সংগ্রহের জন্য এসএমএস এর মাধ্যমে এ্যাপয়েন্টমেন্ট দিতে হয়।
**প্রয়োজনীয় কাগজ পত্রঃ
১. জাতীয় পরিচয়পত্র। ২. রেজিস্ট্রেশন সার্টিফিকেট/প্রাপ্তি স্বীকারপত্র।
**সেবার মূল্য ও পরিশোধ পদ্ধতিঃ
১. রেট্রো-রিফ্লেকটিভ নাম্বারপ্লেট ও আরএফআইডি ট্যাগ মোটরসাইকেল থ্রী হুইলার এর জন্য ২,২৬০/- টাকা এবং অন্যান্য যানবাহনের ক্ষেত্রে ৪,৬২৮/- টাকা।
২. ডিআরসি যে কোন মোটরযানের জন্য ৫৫৫/- টাকা।
৩. শিক্ষানবিশ ড্রাইভিং লাইসেন্স সেবা প্রদান পদ্ধতিঃ
ক. ড্রাইভিং লাইসেন্সের পূর্বশর্ত হলো লার্নার বা শিক্ষানবিশ ড্রাইভিং লাইসেন্স। গ্রাহকের লার্নার বা শিক্ষানবিশ ড্রাইভিং লাইসেন্স এর জন্য নির্ধারিত ফরমে রেজিষ্টার্ড চিকিৎসক প্রদত্ত মেডিক্যাল সার্টিফিকেট, জাতীয় পরিচয়পত্র/পাসপোর্ট/এসএসসি সার্টিফিকেটের সত্যায়িত ফটোকপি, নির্ধারিত ফি প্রদানের রশিদ, সদ্য তোলা তিন কপি স্ট্যাম্প ও এক কপি পাসপোর্ট সাইজ ছবি, স্থায়ী ও বর্তমান ঠিকানার প্রমানপত্রসহ উক্ত ঠিকানা বিআরটিএ-এর যে সার্কেলে আওতাভূক্ত সেই সার্কেল অফিসে আবেদন করতে হয়। কাগজপত্রসহ আবেদন সঠিক পাওয়া গেলে সার্কেল অফিস কর্তৃপক্ষ পরীক্ষা গ্রহণের তারিখসহ গ্রাহকের অনুকুলে একটি শিক্ষানবিশ/লার্নার ড্রাইভিং লাইসেন্স ইস্যু করা হয়। যা দিয়ে আবেদনকারীর ড্রাইভিং প্রশিক্ষণ গ্রহণ করতে পারেন। ড্রাইভিং লাইসেন্স প্রাপ্তির যোগ্যতা অর্জনের জন্য আবেদনকারীকে লার্নার ড্রাইভিং লাইসেন্সের উল্লেখিত তারিখ, সময় ও স্থানে ড্রাইভিং কম্পিটেন্সি পরিক্ষায় উত্তীর্ণ হতে হয়। লার্নার ড্রাইভিং লাইসেন্স এর মেয়াদ উত্তীর্ণ হলে প্রয়োজনীয় ফি জমা রশিদসহ নির্ধারিত ফরমে আবেদন করা হলে তিন মাস মেয়াদে বৃদ্ধি করা হয়।
**প্রয়োজনীয় কাগজ পত্রঃ
. পূরণকৃত নির্ধারিত আবেদন ফরম। ২. নির্ধারিত জমা প্রদানের রশিদ। ৩. রেজিষ্ট্রার্ড চিকিৎসক প্রদত্ত মেডিক্যাল সার্টিফিকেট। ৪. জাতীয় পরিচয়পত্র/ পাসপোর্ট/ এসএসসি সার্টিফিকেট সত্যায়িত ফটোকপি। ৫. সদ্য তোলা তিন কপি স্ট্যাম্প ও এক কপি পাসপোর্ট সাইজ ছবি। ৬. বসবাসের ঠিকানা প্রযোজনীয় প্রমাণপত্র (ভাড়ার চুক্তিপত্র/ ইউলিটি বিলের কপি)।
.
**সেবার মূল্য ও পরিশোধ পদ্ধতিঃ
১. এক ক্যাটাগরি লাইসেন্স এর জন্য ৩৪৫/- টাকা। ২. দুই ক্যাটাগরি লাইসেন্স এর জন্য ৫১৮/- টাকা ৩.লার্নার ড্রাইভিং লাইসেন্সের নবায়ন ফি ৮৭/- টাকা। প্রদানের সময় ২৪ ঘন্টা।

৩. ড্রাইভিং লাইসেন্স ইস্যু সেবা প্রদান পদ্ধতিঃ
ক. ড্রাইভিং কম্পিটেন্সি পরিক্ষায় উত্তীর্ণের পর আবেদনকারীকে নির্ধারিত ফরমে প্রয়োজনীয় কাগজপত্র ও ফি জমার রশিদসহ আবেদন করতে হয়। আবেদনের পর গ্রাহককে বায়োমেটিক্স  (ডিজিটাল ছবি, স্বাক্ষর ও আঙ্গুলের ছাপ) প্রদানের তারিখ উল্লেখ করে একটি প্রাপ্তির স্বীকারপত্র প্রদান করা হয়। নির্ধারিত তারিখে গ্রাহকের বায়োমেটিক্স গ্রহণের পর বিআরটিএ অফিস কর্তৃক উক্ত আবেদন প্রসেস করে স্মার্ট কার্ড ড্রাইভিং লাইসেন্স প্রিন্ট করা হয় এবং লাইসেন্স গ্রহণের জন্য গ্রাহকের মোবাইলে এসএমএস প্রদান করা হয়।
**প্রয়োজনীয় কাগজ পত্রঃ
. পূরণকৃত নির্ধারিত আবেদন ফরম। ২. নির্ধারিত জমা প্রদানের রশিদ। ৩. ড্রাইভিং কম্পিটেন্সি পরিক্ষার প্রমানক (লার্নার লাইসেন্স)। ৪. জাতীয় পরিচয়পত্র/ পাসপোর্ট/ এসএসসি সার্টিফিকেট সত্যায়িত ফটোকপি। ৫. সদ্য তোলা দুই কপি স্ট্যাম্প ও এক কপি পাসপোর্ট সাইজ ছবি। ৬. বসবাসের ঠিকানা প্রযোজনীয় প্রমাণপত্র (ভাড়ার চুক্তিপত্র/ ইউলিটি বিলের কপি)।
.
**সেবার মূল্য ও পরিশোধ পদ্ধতিঃ
১. অপেশাদার লাইসেন্সের আবেদনের ক্ষেত্রে ২,৫৪২/- টাকা। ২. পেশাদার লাইসেন্সের আবেদনের ক্ষেত্রে ১,৬৭৯/- টাকা।
৫. ড্রাইভিং লাইসেন্স নবায়ন সেবা প্রদান পদ্ধতিঃ
ক. অপেশাদার ড্রাইভিং লাইসেন্সের নবায়নের ক্ষেত্রে আবেদনকারী কে নির্ধারিত ফরমে প্রয়োজনীয় কগজপত্র ও ফি জমার রশিদ সহ ড্রাইভিং লাইসেন্স ইস্যুকারী বিআরটিএ সার্কেল অফিসে আবেদন করতে হয়। আবেদনের পর গ্রাহককে বায়োমেটিক্স (ডিজিটাল ছবি, স্বাক্ষর ও আঙ্গুলের ছাপ) প্রদানের তারিখ উল্লেখ করে একটি প্রাপ্তি স্বীকারপত্র প্রদান করা হয়। নির্ধারিত তারিখে গ্রাহকের বায়োমেটিক্স গ্রহণের পর বিআরটিএ অফিস কর্তৃক উক্ত আবেদনের প্রসেস করে স্মার্ট কার্ড ড্রাইভিং লাইসেন্স প্রিন্ট করা হয় এবং লাইসেন্স গ্রহণের জন্য গ্রাহকের মোবাইলে এসএমএস প্রদান করা হয়।
**প্রয়োজনীয় কাগজ পত্রঃ
১. পূরণকৃত নির্ধারিত আবেদন ফরম। ২. নির্ধারিত জমা প্রদানের রশিদ। ৩. জাতীয় পরিচয়পত্র/ পাসপোর্ট/ এসএসসি সার্টিফিকেট সত্যায়িত ফটোকপি। ৪. সদ্য তোলা দুই কপি স্ট্যাম্প ও এক কপি পাসপোর্ট সাইজ ছবি। ৫. বসবাসের ঠিকানা প্রযোজনীয় প্রমাণপত্র (ভাড়ার চুক্তিপত্র/ ইউলিটি বিলের কপি)।
**সেবার মূল্য ও পরিশোধ পদ্ধতিঃ
১. অপেশাদার লাইসেন্সের আবেদনের ক্ষেত্রে ২,৫৪২/- টাকা। ২. পেশাদার লাইসেন্সের আবেদনের ক্ষেত্রে ১,৬৭৯/- টাকা।
৬. মোটরযানের রুট পারমিট ইস্যু ও নবায়ন সেবা প্রদান পদ্ধতিঃ
সেবা গ্রহণকারীর সংশ্লিষ্ট বিআরটিএ অফিসে নির্ধারিত ফরমে প্রয়োজনীয় কাগজপত্র ও মোটরযান রুট পারমিট ইস্যু/নবায়নের জন্য আবেদন করতে হয়। বিআরটিএ অফিস কর্তৃক উক্ত আবেদন যাচাই-বাচাই করে সঠিক পাওয়া গেলে আঞ্চলিক পরিবহন কমিটি (আরটিসি) তে করতে হয়। কমিটি কর্তৃক অনুমোদিত হলে সদস্য সচিব সহকারী পরিচালক (ইঞ্জিঃ) রুট পারমিট ইস্যু/নবায়ন করে গ্রাহক কে সরবরাহ করা হয়।  * এক জেলা/মেট্রো পলিটন এলাকার মধ্যে চলাচলকারী স্টেজ ক্যারেজের জন্য সংশ্লিষ্ট জেলা/ মেট্রোপলিটন আরটিসি বরাবর আবেদন করতে হয়। * একাধিক জেলা এবং বিভাগের মধ্যে চলাচলকারী স্টেজ ক্যারেজের জন্য বিআরটিএ এর সংশ্লিষ্ট বিভাগীয় অফিসে আবেদন করতে হয়। * আন্তঃ বিভাগ স্টেজ ক্যারেজ এর রুট পারমিটের জন্য বিআরটিএ সদর কার্যালয়ে রুট পারমিট শাখায় আবেদন করতে হয়।
**প্রয়োজনীয় কাগজ পত্রঃ
১. নির্ধারিত ফর্মের আবেদন পত্র পূরণ ও স্বাক্ষর। ২. প্রয়োজনীয় প্রদানের রশিদ। ৩. চালকের নিয়োগপত্র ও ড্রাইভিং লাইসেন্স এর সত্যায়িত কপি। ৪. রেজিস্ট্রেশন ও ফিটনেস সার্টিফিকেটের সত্যায়িত ফটোকপি। ৫. রুটপারমিট সার্টিফিকেটের মূলকপি (নবায়নের ক্ষেত্রে)। ৬. হালনাগাত ট্যাক্স টোকেন ফটোকপি। ৭. টিআইএন সংক্রান্ত কাগজপত্র এর সত্যায়িত কপি। ৮. অনুমোদিত আয়কর জমার রশিদ এর সত্যায়িত ফটোকপি।
**সেবার মূল্য ও পরিশোধ পদ্ধতিঃ
১. বাস/মিনিবাস এর ক্ষেত্রে প্রতি বছর ৫৭৫/- টাকা (এক জেলার মধ্যে চলাচলের জন্য)। ২. প্রতি বছর ৯২৫/- টাকা (একাধিক কিন্তু অনাধিক তিন জেলার মধ্যে চলাচলের জন্য)। ৩. প্রতি বছর ১২৯০/- টাকা (তিনের অধিক জেলার মধ্যে চলাচলের জন্য)। প্রদানের সময় ২৪ ঘন্টা।
৭. মোটরযানের ট্যাক্স টোকেন ইস্যু ও নবায়ন সেবা পদ্ধতিঃ
ক. মোটরযানের ফিটনেস সার্টিফিকেট নবায়নের জন্য প্রয়োজনীয় কাগজপত্র ও নির্ধারিত ফি জমার রশিদসহ গ্রাহককে নির্ধারিত ফরমে আবেদন করতে হয়। উক্ত আবেদন পত্র সহ মোটরযানটি সংশ্লিষ্ট বিআরটিএ সার্কেল অফিসে মোটরযান পরির্দশক কর্তৃক মোটরযানটি পরিদর্শনের পর ফিটনেস প্রদানের জন্য উপযুক্ত বিবেচিত হলে এক বছরের জন্য ফিটনেস সার্টিফিকেট নবায়ন করত একটি সার্টিফিকেট ইস্যু করা হয়।
**প্রয়োজনীয় কাগজ পত্রঃ
১. নির্ধারিত ফর্মের আবেদন পত্র পূরণ ও স্বাক্ষর। ২. প্রয়োজনীয় প্রদানের রশিদ। ৩. ফিটনেস সার্টিফিকেটের মূলকপি ৪. হালনাগাত ট্যাক্স টোকেন এর সত্যায়িত ফটোকপি ৫. টিআইএন সংক্রান্ত কাগজপত্র এর সত্যায়িত কপি। ৬. ইন্সুরেন্স রুট পারমিটের সত্যায়িত কপি। ৭. অনুমতি অগ্রীম আয়কর প্রদানের প্রমাণপত্র।
**সেবার মূল্য ও পরিশোধ পদ্ধতিঃ
১. হালকা ও মাঝারীযান ৯০০/- টাকা । ২. ভারীযান ১৩৫০/- টাকা । ৩. অগ্রীম আয়কর (গাড়ীর সিসির ভিত্তিতে নির্মিত গাড়ীর ধরণ ভেদে ১৫,০০০/- হতে ১২৫,০০০/- টাকা পর্যন্ত। প্রদানের সময় ২৪ ঘন্টা।
৮. মোটরযানের ট্যাক্স টোকেন ইস্যু ও নবায়ন সেবা প্রদান পদ্ধতিঃ
মোটরযানের রেজিস্ট্রেশনের সময় প্রথম ট্যাক্স টোকেন বিআরটিএ অফিস কর্তৃক ইস্যু করা হয়। পরবর্তিতে অনুমোদিত ব্যাংক সমূহের নির্ধারিত যে কোন শাখা/বুথ এ প্রয়োজনীয় ফি জমা প্রদান করে ট্যাক্স টোকেন নবায়ন করা হয়।
**প্রয়োজনীয় কাগজ পত্রঃ
১. প্রয়োজনীয় ফি জমার রশিদ। ২. পূর্বের ইস্যুকৃত ট্যাক্স টোকেন সার্টিফিকেট (মূলকপি)। 
**সেবার মূল্য ও পরিশোধ পদ্ধতিঃ
মোটরযানের ট্যাক্স সিট সংখ্যা, বোঝায় ওজন ইত্যাদির উপর ভিত্তি করে নির্ধারণ করা রয়েছে যার হার বিআরটিএ ওয়েব সাইটেঃ (www.brta.gov.bd) রয়েছে। প্রদানের সময় ২৪ ঘন্টা।
৯. কন্ডাক্টর লাইসেন্স ইস্যু ও নবায়ন সেবা প্রদান পদ্ধতিঃ
সেবা গ্রহীতাকে নির্ধারিত ফরমে নির্ধারিত ফরমে সংশ্লিষ্ট বিআরটিএ সার্কেল অফিসে প্রয়োজনীয় কাগজপত্র ও ফি আবেদন করতে হবে। বিআরটিএ অফিস কর্তৃক আবেদনটি যাচাই-বাচাই করে সঠিক পাওয়া গেলে গ্রাহককে পরিক্ষার জন্য এতদূদ্দেশ্যে গঠিত কমিটির নিকট হাজির হওয়ার জন্য নোটিশ প্রদাণ করা হয়। পরিক্ষার উত্তীর্নের পর গ্রাহকের অনুকুলে কন্ডাক্টর লাইসেন্স ইস্যু করা হয়।
**প্রয়োজনীয় কাগজ পত্রঃ
১. নির্ধারিত ফর্মের আবেদন পত্র। ২. জাতীয় পরিচয়পত্র ফটোকপি। ৩. সাম্প্রতিক তোলা তিন কপি পাসপোর্ট সাইজ ছবি। ৪. নির্ধারিত ফর্মের চিকিৎসার সনদপত্র। ৫. প্রয়োজনীয় ফি জমার রশিদ।
**সেবার মূল্য ও পরিশোধ পদ্ধতিঃ
৮৭/- টাকা প্রদত্ত ফি জমা।
১০. ইন্সট্রাক্টর লাইসেন্স ইস্যু সেবা প্রদান পদ্ধতিঃ
সেবা গ্রহণকারী বিআরটিএ সদর কার্যালয়ে ইঞ্জিনিয়ারিং শাখায় নির্ধারিত ফরমে প্রয়োজনীয় কাগজ পত্র ও ফি জমা রশিদসহ ইন্সট্রাক্টর লাইসেন্সের আবেদন করতে হবে। বিআরটিএ অফিস কর্তৃক আবেদনটি যাচাই-বাচাই করে সঠিক পাওয়া গেলে গ্রাহককে পরিক্ষার জন্য এতদূদ্দেশ্যে গঠিত কমিটির নিকট হাজির ওয়ার জন্য নোটিশ প্রদান করা হয়। পরিক্ষার উর্ত্তীণের পর গ্রহকের অনুকুলে ইন্সট্রাক্টর লাইসেন্স ইস্যু করা হয়।
**প্রয়োজনীয় কাগজ পত্রঃ
১. নির্ধারিত ফর্মের আবেদন পত্র। ২. প্রয়োজনীয় ফি জমার রশিদ। ৩. বৈধ ড্রাইভিং লাইসেন্সের সত্যায়িত ফটোকপি। ৪. এসএসসি সার্টিফিকেটের সত্যায়িত ফটোকপি। ৫. জাতীয় পরিচয়পত্রের ফটোকপি। ৬. সাম্প্রতিক তোলা দুই কপি পাসপোর্ট দুই কপি স্ট্যাম্প সাইজ ছবি। ৭. তিন বছরের বাস্তব অভিজ্ঞতার প্রমাণপত্র। ৮. জীবন বৃত্তান্ত। ৯. প্রথম শ্রেণীর সরকারী গেজেটেড কর্মকর্তা প্রদত্ত চারিত্রিক সার্টিফিকেট।
**সেবার মূল্য ও পরিশোধ পদ্ধতিঃ
৮৬৩/- টাকা প্রদত্ত ফি জমা।
১১. উইন্ডশীল্ড ডিকল (স্টিকার) সেবা প্রদান পদ্ধতিঃ
মোটরযান ফিটনেস সার্টিফিকেট ইস্যু বা নবায়নের সময় মোটরযানের উইন্ডশিল্ড গ্লাসে বিআরটিএ কর্তৃক লাগিয়ে দেওয়া হয়।
**প্রয়োজনীয় কাগজপত্রঃ
১. হালনাগাত ট্যাক্স টোকেন এর ফটোকপি। ২. ফিটনেস সার্টিফিকেটের সত্যায়িত ফটোকপি।
**সেবার মূল্য ও পরিশোধ পদ্ধতিঃ
৫২/- টাকা প্রদত্ত ফি জমা।
১২. বিআরটিএ সর্বপ্রকার আবেদন ফরম সরবরাহ সেবা প্রদান পদ্ধতিঃ
অফিসে সরাসরি যোগযোগের মাধ্যমে সরবরাহ করা হয়।
**প্রয়োজনীয় কাগজপত্রঃ
প্রযোজ্য নয়।
**সেবার মূল্য ও পরিশোধ পদ্ধতিঃ
বিনামূল্যে।

সিটিজেন চার্টার

ছবি


সংযুক্তি

সিটিজেন চার্টার সিটিজেন চার্টার


সংযুক্তি (একাধিক)



Share with :

Facebook Twitter